1. admin@gaibandhapratidin.com : Milon Sarkar : Milon Sarkar
৩৫ বছরেও জোটেনি হুইল চেয়ার শারীরিক প্রতিবন্ধী জাহাঙ্গীর আলমের কপালে • গাইবান্ধা প্রতিদিন
শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ০৬:০৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
পৃথিবী সেরা তিন সাংবাদিক, যারা সাংবাদিকতা পেশাকে নিয়ে গেছে অন্যরকম এক উচ্চতায়। গোবিন্দগঞ্জে ফেয়ার প্রাইজের চাল কালোবাজারে বিক্রির সময় চালসহ আটক ১ পলাশবাড়ীতে ২৫০ গ্রাম গাঁজাসহ মাদক ব্যবসায়ির সহযোগী মজনু গ্রেফতার : মূল ব্যবসায়ি পলাতক গাইবান্ধা সদর হাসপাতাল ডাঃ তাহেরা আক্তার মনির ভুল চিকিৎসায় মারা গেলেন মা | গোবিন্দগঞ্জে এক মর্মান্তিক সড়ক দুঘর্টনায় একই পরিবারের ৪ অটোভ্যান যাত্রী নিহত গোবিন্দগঞ্জে বাস চাপায় এক সাইকেল আরোহী নিহত :বাস আটক নিরাপদ যানবাহন চাই এর সাথে বাংলাদেশ অনলাইন বঙ্গবন্ধু পরিষদলীগের সৌজন্যে সাক্ষাৎ। একজন ইউপি মেম্বারের উন্নয়নের কথা- ১২ কামারজানি ইউনিয়ন পরিষদ জিয়াউর রহমান জিয়া কেন্দ্রীয় কমিটির সহ – স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক হওয়ায় সদর উপজেলার সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত ৩৫ বছরেও জোটেনি হুইল চেয়ার শারীরিক প্রতিবন্ধী জাহাঙ্গীর আলমের কপালে

৩৫ বছরেও জোটেনি হুইল চেয়ার শারীরিক প্রতিবন্ধী জাহাঙ্গীর আলমের কপালে

রুবেল
  • প্রকাশের সময় : সোমবার, ২৯ মার্চ, ২০২১
  • ১২৫ বার পঠিত

গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলার হরিনাথপুর ইউনিয়নের কদমতলী বাজারের রাস্তার পাশ্বে দেখা মিলল শারীরিক প্রতিবন্ধী জাহাঙ্গীর আলমের। জম্মের পর থেকেই হাত ও পা থেকেও নেই। দুটি হাত দিয়ে লাটির উপর ভর করে মাটি ঘেঁষে চলাচল করছে।

একটি হুইল চেয়ারের অভাবে মানবেতর জীবন যাপন করছে সে। জাহাঙ্গীর আলমের আকুতি,তার একটি হুইল চেয়ার প্রয়োজন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়,পলাশবাড়ী উপজেলার হরিনাথপুর ইউনিয়নের হরিনাথপুর গ্রামের মৃত্যু হেলাল মিয়ার ছেলে জাহাঙ্গীর আলম। জন্ম থেকেই জাহাঙ্গীর আলম শারীরিক প্রতিবন্ধী। চারটি হাত পা’ই তার নষ্ট। পা দুটি দিয়ে কোনও ভাবেই হাটা চলা করতে পারে না।পায়ের অধিকাংশই বাঁকা। হুইল চেয়ার না থাকায় হাতে লাটি ধরে ও আঙ্গুলের উপর ভর করে মাটি ঘেঁষে চলাচল করে সে। চলাচল করতে খুব কষ্ট হয় তার। মাটি ঘেঁষে চলাচল করায় হাত ও পায়ে ফোসকা পড়েছে। চোখমুখে হতাশা নিয়ে জাহাঙ্গীর আলম বলল, ছবি তোলেন কেন ? আগে কতবার ছবি উঠেছে একটা হুইল চেয়ার পাইনি। হুইল চেয়ার হলে কিছুটা স্বাভাবিক চলাচল করতে পারতাম। আমারে একটি হুইল চেয়ার দিবেন?

প্রতিবেশী বাবলু বলেন,জাহাঙ্গীর আলম গরীব অসহায় পরিবারের ছেলে,তার বাবা মারা যাওয়ার পর সে আরোও অসহায় হয়ে পড়েছে।
এই শীতের মধ্যে সে মাটিতে চলাফেরা করেছে। ওর দিকে তাকালে খুব কষ্ট লাগে। কত কষ্ট করে চলাচল করে জাহাঙ্গীর। তার একটি হুইল চেয়ার খুব দরকার।

তার পরিবারের সাথে কথা বলে জানা যায়, যা আয় হয় তা দিয়ে পেটের ভাত জোটে না। কিভাবে হুইল চেয়ার কিনে দেই।

জাহাঙ্গীর আলমের খোঁজ খবর নিতে কথা হয় হরিনাথপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রুহুল আমিন কবির রুশো,র সঙ্গে।
তিনি জানান,জাহাঙ্গীর আলম জন্ম থেকেই প্রতিবন্ধী। হাঁটতে পারে না। সরকারি ভাতা সে পায়।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর...

© ২০২০-২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | গাইবান্ধা প্রতিদিন

Theme Customized BY LatestNews